জঙ্গী সন্দেহে মুর্শিদাবাদ থেকে আরও এক যুবককে গ্রেফতার করল এনআইএ

জঙ্গী সন্দেহে মুর্শিদাবাদ থেকে আরও এক যুবককে গ্রেফতার করল এনআইএ

নিউজ ডেস্ক বঙ্গ রিপোর্ট: আল কায়েদা জঙ্গী সন্দেহে মুর্শিদাবাদ থেকে আরও এক যুবককে গ্রেফতার করল এনআইএ। কেন্দ্রীয় তদন্তকারী সংস্থার দাবি ওই যুবকের আল কায়েদা জঙ্গিযোগ রয়েছে। তার কাছ থেকে উদ্ধার হওয়া একাধিক নথিতে তার জঙ্গিযোগের প্রমাণ মিলেছে বলে মনে করছেন এনআইএ’র তদন্তকারী অফিসাররা। তাকে গ্রেফতারের পরেই ট্রানজিট রিমান্ডে দিল্লি নিয়ে যাওয়া হচ্ছে বলে জানা গিয়েছে।

মাস খানেক আগেই মুর্শিদাবাদ থেকে জঙ্গী যােগে ৬ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছিল। তাদের জিজ্ঞাসাবাদ করেই আবদুল মোমেন মণ্ডল নামে ওই যুবককে রবিবার রাতে এনআইএ’র তদন্তকারী অফিসাররা গ্রেফতার করেছেন। তদন্তকারীরা জানতে পেরেছেন মুর্শিদাবাদের রায়পুরের একটি মাদ্রাসায় শিক্ষকতা করতেন। এনআইএ’র দাবি, শিক্ষকতার আড়ালে বিভিন্ন ধরণের সন্ত্রাসবাদী কার্যকলাপের জন্য আলোচনা চালিয়ে যেতেন তিনি। শুধু তাই নয়, জঙ্গী মূলক কার্যকলাপের জন্য অর্থ জোগাড় করা, নতুন সদস্য নিয়োগ করার দায়িত্বেও তিনি ছিলেন।

এবিষয়ে মুর্শিদাবাদ জেলার এসপি সবরি রাজকুমার সংবাদমাধ্যমকে জানান, ‘আগেই জেলা থেকে ৬ জনকে এনআইএ গ্রেফতার করেছে। সেই কেসে মোমিন মন্ডলকে জিজ্ঞাসা বাদ করে আজ গ্রেফতার করেছে তারা।’

ধৃতদের কাছ থেকে এই তথ্য জানার পরেই এলাকায় হানা দেন এনআইএ’র অফিসাররা। এরপরেই মুর্শিদাবাদ থেকে তাকে হাতে নাতে গ্রেফতার করে। তার কাছ থেকে বেশকিছু ডিজিটাল ডিভাইস, নথিসহ একাধিক জিনিস উদ্ধার হয়েছে। তবে এনআইএ ওই শিক্ষককে জঙ্গি তকমা দিলেও স্থানীয়দের অনেকেরই দাবি তাঁকে ফাসানো হয়েছে।